মোদির শপথ আজ, ছয় হাজার দেশী-বিদেশী অতিথিকে স্বাগত জানাতে প্রস্তুত মঞ্চ

সিলনিউজ অনলাইনঃ আজ ৩০ মে (বৃহস্পতিবার) সন্ধ্যায় ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির দ্বিতীয় মেয়াদে শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে ছয় হাজার দেশী-বিদেশী অতিথিকে স্বাগত জানাতে রাষ্ট্রপতি ভবনের সম্মুখভাগে মঞ্চ স্থাপন করা হচ্ছে। রাষ্ট্রপতি ভবনে কোন একক অনুষ্ঠানের জন্য এত বড় আয়োজন হবে নতুন রেকর্ড। বিমস্টেক দেশগুলোর রাষ্ট্রপ্রধানসহ বিপুলসংখ্যক বিশিষ্ট অতিথিকে স্বাগত জানাতে প্রস্তুত করা হচ্ছে রাষ্ট্রপতি ভবন।

ভারতীয় রাষ্ট্রপতির প্রেস সচিব আশোক মালিক বুধবার গণমাধ্যমকে বলেন, আমার জানা মতে গাম্ভীর্যপূর্ণ এই অনুষ্ঠানে অনাড়ম্বর ও মর্যাদার বিষয়ে জোর দেয়া হবে। রাষ্ট্রপতি ভবনে একটি একক অনুষ্ঠানে কখনোই এত বিপুলসংখ্যক লোককে আমন্ত্রণ জানানো হয়নি।

বিমস্টেকের অন্যান্য দেশগুলোর রাষ্ট্রপ্রধানদের সঙ্গে বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ এ অনুষ্ঠানে অংশ নেবেন। রাষ্ট্রপতির সঙ্গে থাকবেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী এ কে এম মোজাম্মেল হক।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি বিশেষ ফ্লাইটযোগে রাষ্ট্রপতি তাঁর সফরসঙ্গীদের নিয়ে বুধবার সন্ধ্যায় দিল্লি যান।
এই সফরকালে আবদুল হামিদের আগামীকাল (শুক্রবার) বিকেলে ঢাকার উদ্দেশ্যে যাত্রার আগে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে হায়দ্রাবাদ হাউসে এক বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে।

এর আগে ভারত সরকার মোদির শপথ অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণের জন্য কিরগিজ রিপাবলিক ও মরিশাসসহ বিমস্টেক দেশসমূহের নেতাদের আমন্ত্রণ জানান। রাজনৈতিক নেতা, কূটনীতিক, মুখ্যমন্ত্রী, শিক্ষাবিদ, লেখক, বিশিষ্ট ব্যক্তি, ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব, চলচ্চিত্র ব্যক্তিত্ব ও বিভিন্ন ক্ষেত্রে সফল ব্যক্তিরাও অনুষ্ঠানে অংশ নেবেন।

এদিকে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী- বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ, শ্রীলংকার প্রেসিডেন্ট মাইথ্রিপালা সিরিসেনা, কিরগিজ প্রেসিডেন্ট সোরোনবে জীনবেকভ, মিয়অনমারের প্রেসিডেন্ট ইউ উইন মিন্ট, মরিশাসের প্রধানমন্ত্রী প্রভিন্দ কুমার যুগনাথ, নেপালের প্রধানমন্ত্রী কেপি শার্মা ওলি, ভুটানের প্রধানমন্ত্রী লোটে শেরিং এবং থাইল্যান্ডের কৃষি ও সমবায় মন্ত্রী গ্রিসাদা বোনরাচ বিশেষ প্রতিনিধি হিসেবে অনুষ্ঠানে অংশ নেবেন বলে নিশ্চিত করেছেন।

বাসস

ফেসবুক মন্তব্য
xxx