নিউজটি পড়া হয়েছে 61

জগন্নাথপুরে সাংস্কৃতিক অঙ্গনের উজ্জল তারকা তানভীর আহমদ ইমু আর নেই

জগন্নাথপুর(সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি: উপজেলার পৌর শহরের প্রধান ব্যবসা কেন্দ্র জগন্নাথপুর বাজারের ইলেক্ট্রনিক্স ব্যবসায়ী ও ওয়াচ মেকানিক্স আব্দাল মিয়ার ছেলে তানভীর আহমদ ইমু ইন্তেকালকরেছেন। ইন্না—রাজেউন। বুধবার দুপুরে সিলেট শহরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইমু শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন। জগন্নাথপুর উপজেলার সাংস্কৃতিক অঙ্গনের উজ্জল তারকা তানভীর আহমদ ইমুর মৃত্যুর সংবাদে পুরো উপজেলায় শোকের ছায়া নেমে আসে। ঐদিন মাগরিবের নামাজের পর উপজেলার চিলাউড়া হলদিপুর ইউনিয়নের রসুলপুর গ্রামের শাহী ঈদগাহ মাঠে নামাজের জানাযা শেষে গ্রামের জামে মসজিদের কবরস্থানে দাফন সম্পন্ন হয়। দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলার দূর্গাপাশা ইউনিয়নের সিচনী গ্রামের বাসিন্দা জগন্নাথপুর বাজারের ব্যবসায়ী আব্দাল মিয়ার ছেলে তানভীর আহমদ ইমু সিলেট সরকারি কলেজ থেকে এবছর এইচ এসসি পরীক্ষায় অংশ গ্রহন করেন। উদীচী শিল্পী গোষ্টি জগন্নাথপুর উপজেলা শাখার নাট্য বিষয়ক সম্পাদক তানভীর আহমদ ইমু পড়া লেখার পাশাপাশি সাংস্কৃতিক অঙ্গনের সাথে অতপ্রত ভাবে জড়িত ছিল।প্রয়াত নাট্যকার মানস রঞ্জন রায় রচিত সিংহাসন ও দুই বিগা জমি নাটকে অভিনয় করে ইমু প্রসংশা কুড়িয়েছেন। তরুন নাট্য অভিনেতা মেধাবী ছাত্র ইমু চিত্রকর্মের পাশাপাশি সাংস্কৃতিক অঙ্গনে জগন্নাথপুরসহ পুরো জেলাব্যাপী পরিচিতি লাভ করেন।তানভীর আহমদ ইমু মঙ্গলবার হঠাৎ প্রচন্ড মাথা ব্যাথা হলে তাকে দ্রুত সিলেট শহরের একটি প্রাইভেট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বুধবার দুপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইমু মৃত্যুর কূলে ঢলে পড়েন।এদিকে মেধাবী ছাত্র সাংস্কৃতিক কর্মী তানভীর আহমদ ইমুর মৃত্যুর সংবাদ জগন্নাথপুর উপজেলায় ওদক্ষিন সুনামগঞ্জের সিচনী গ্রামে পৌছলে সর্বত্রই শোকের ছায়া নেমে আসে। ইমুুর বাবা মা আত্মীয় স্বজন প্রতিবেশী ও সহপাঠিদের বুকফাঁটা করুন আর্তনাদে এলাকা ভারী হয়ে উঠে। বাকরুদ্ধ পরিবারে এখনো বিরাজ করছে শোকের মাতম।

এদিকে বিকেল ৪টায় ইমুুর মরদেহ সিলেট শহর থেকে এ্যাম্বুলেন্সযোগে জগন্নাথপুর উপজেলা সদরের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে নিয়ে আসা হলে তার সহপাঠি ও সাংস্কৃতিক কর্মীসহ বিভিন্ন শ্রেনী পেশার লোকজন তাকে শেষবারের মতো দেখতে শহীদ মিনারে ভীড় জমান। এসময় তার শিক্ষা জীবনের সহপাঠি ও সাংস্কৃতিক কর্মীরা কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন। পরে উদীচী শিল্পী গোষ্টি সহবিভিন্ন সংগঠনের নেতৃবৃন্দরা ইমুর মরদেহে ফুল দিয়ে শেষ শ্রদ্ধা জানানোর পর মরদেহটি নিয়ে যাওয়াহয় ইমুর নানার বাড়ি জগন্নাথপুর উপজেলার চিলাউড়া হলদিপুর ইউনিয়নের চিলাউড়া রসুলপুর গ্রামে। শোক 

ফেসবুক মন্তব্য
xxx