নবীগঞ্জের ঐতিহ্যবাহী দিনারপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক গৌরাপদ গোস্বামী আর নেই, বিভিন্ন মহলের শোক।

 

নবীগঞ্জ প্রতিনিধিঃ নবীগঞ্জ উপজেলার ঐতিহ্যবাহী বিদ্যাপীঠ দিনারপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক গৌরাপদ গোস্বামী মৃত্যুবরণ করেছেন। শনিবার দিবাগত রাত ১২ঘটিকার সময় কলকাতার পি জি হসপিটালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। তিনি দীর্ঘদিন যাবত কিডনি জনিত রোগ সহ জটিল রোগ ব্যাধিতে ভুগছিলেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৫৭ বৎসর।

গৌরাপদ গোস্বামী ১৯৬১ সালে নবীগঞ্জ উপজেলার গজনাইপুর ইউনিয়নের শতক গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি শতক গ্রামে অবস্থিত ঠাকুর বাণী আশ্রমের তত্বাবধায়ক ও ঠাকুর বাণীর দ্বাদশ বংশদর ছিলেন এবং তিনি নিঃসন্তান বলেও জানা গেছে। শিক্ষা জীবনে ভারতের বিভিন্ন স্কুল কলেজে লেখা পড়া শেষে ১৯৮৯ সালে দিনারপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক হিসাবে যোগদান করেন। পরবর্তিতে তিনি উক্ত বিদ্যালয়ে দীর্ঘদিন সহকারী প্রধান শিক্ষক হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন। সবশেষে তিনি ২০১৭ সালে অত্র বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক হিসাবে নিয়োগ লাভ করেন।

তাঁর মৃত্যুতে দিনারপুর উচ্চ বিদ্যালয়সহ এলাকায় শোকের ছায়াঁ নেমে এসেছে । বিদ্যালয়ের চলমান অর্ধবার্ষিক পরীক্ষা স্থগিত করে ২ দিনের শোক ঘোষণা করা হয়েছে। এছাড়া ও তাঁর মৃত্যুতে বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও পেশাজীবি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।

গৌরাপদ গৌস্বামীর মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেন হবিগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগ নেতা ও সাবেক প্রয়াত মন্ত্রী দেওয়ান ফরিদ গাজী তনয় শাহনেওয়াজ মিলাদ গাজী, দিনারপুর উচ্চ বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি, গজনাইপুর ইউপি চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ইমদাদুর রহমান মুকুল, অত্র বিদ্যালয়ের সকল শিক্ষক মন্ডলী, উপজেলার গজনাইপুর ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি শফিউল আলম বজলু, গজনাইপুর ইউনিয়ন যুবলীগের আহবায়ক জমসেদ আলী, সমাজকর্মী ও সাংবাদিক এম এ মুহিত, ছাত্র উন্নয়ন পরিষদের সভাপতি ও দৈনিক বিজয়ের বার্তার সম্পাদক ছনি চৌধুরী ও দিনারপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের ২০০০ সন থেকে ২০১৭ সনের সকল শিক্ষার্থী সংবাদ মাধ্যমে প্রেরিত পৃথক শোক বার্তায় গভীর শোক প্রকাশ করেন।

আজ (সোমবার) রাতে প্রধান শিক্ষক গৌরাপদ গোস্বামীর মৃতদেহ নিজ বাড়িতে পৌঁছানোর কথা রয়েছে বলে জানিয়েছেন তার পরিবার । মঙ্গলবার সকাল ৮টায় নিজ কর্মস্থল দিনারপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে ছাত্রছাত্রী, শিক্ষকমন্ডলীসহ সর্বসাধারণের শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে শেষকৃত্য অনুষ্ঠান সম্পন্ন করা হবে বলে জানা গেছে।

ফেসবুক মন্তব্য
xxx