নিউজটি পড়া হয়েছে 90

এবার গ্রিনলাইন বাসের চাপায় পা হারালেন রাসেল

সিলনিউজ অনলাইন ডেস্কঃ কেন প্রাইভেটকারের পেছনে ধাক্কা মারা হলো- এই কারণ জানতে চাওয়ায় চালককে ধাক্কা মেরে ফেলে তাঁর পায়ের ওপর দিয়ে বাস চালিয়ে দিলেন আরেক চালক। এতে প্রাইভেটকার চালকের বাম পা শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে।

এমন ভয়াবহ ঘটনাই ঘটেছে আজ শনিবার বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে রাজধানীর যাত্রাবাড়ী ধোলাইপাড় হানিফ ফ্লাইওভার ঢালে।

বাসের চাকায় পিষ্ট হয়ে বাম পা হারানো প্রাইভেটকার চালক রাসেল সরকার (২৩) এখন রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। তিনি গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলার শফিকুল ইসলামের ছেলে। বর্তমানে আদাবর সুনিবীড় হাউজিং এলাকায় থাকেন।

বিষয়টি এমন এক সময়ে ঘটল যখন সারা দেশেই বাস চালকদের বেপরোয়া আচরণ নিয়ে নানা আলোচনা-সমালোচনা হচ্ছে। সম্প্রতি দুই বাসের রেশারেশির কারণে প্রাণ দিতে হয়েছে রাজধানীর তিতুমীর কলেজের ছাত্র রাজীবকে। এ ছাড়া রাজধানীর বনানীতে বাসের চাকায় পিষ্ট হয়ে পা হারিয়েছেন এক নারী।

আহত রাসেল একটি কোম্পানির ভাড়ার কাজে কেরাণীগঞ্জে গিয়েছিলেন। বিকেলে সেখান থেকে ঢাকায় ফিরছিলেন।

‘যাত্রাবাড়ী ধোলাইপাড় হানিফ ফ্লাইওভার ঢালে প্রাইভেটকারটি পৌঁছলে পিছন দিক থেকে যাত্রীবাহী গ্রিন লাইন পরিবহনের একটি বাস প্রাইভেটকারটিকে সজোরে ধাক্কা দেয়। তখন নেমে ধাক্কা দেওয়ার কারণ জানতে চান চালকের কাছে।’

বিষয়টি নিয়ে বাসের চালক ও রাসেলের মধ্যে কথা কাটিকাটি হয়। একপর্যায়ে বাসের এক কর্মচারী রাসেলকে ধাক্কা মেরে রাস্তায় ফেলে দেন। এ সময় চালক বাসটি পায়ের ওপর দিয়ে চালিয়ে দেন। এতে বাম পা বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় বলে অভিযোগ করেন প্রাইভেটকার চালক রাসেল।

পরে দ্রুত পথচারীরা রাসেলকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান।অবস্থার অবনতি হলে প্রথমে  স্কয়ার  স্কয়ার হাসপাতাল এবং পরে  অ্যাপোলো হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা উপপরিদর্শক (এসআই) বাচ্চু মিয়া জানান, রাসেলের বিচ্ছিন্ন পাসহ তাঁকে উদ্ধার করে পথচারীরা ঢামেকে নিয়ে আসেন। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে রাসেলের স্বজনরা তাঁকে স্কয়ার হাসপাতালে নিয়ে যান।

ফেসবুক মন্তব্য
xxx