মালয়েশিয়ার পথে রোহিঙ্গাবাহী নৌকা

সিলনিউজ অনলাইন ডেস্কঃ মালয়েশিয়ার পথে থাকা অর্ধশতাতিক রোহিঙ্গাবাহী একটি নৌকাকে থাইল্যান্ডের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় ক্রাবি উপকূলে যাত্রাবিরতি করতে দেখা গেছে। এতে নারীসহ ৫৬ জনের মতো রোহিঙ্গা ছিল বলে বৃটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে। তবে তারা কোথা থেকে মালয়েশিয়া যাচ্ছিল জানাতে পারেনি এ আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম।

রয়টার্স জানায়, ৫৬ জন রোহিঙ্গাকে নিয়ে নৌকাটি মালয়েশিয়া যাওয়ার চেষ্টা করছে। রবিবার সকালে সমুদ্রে দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে ক্রাবি প্রদেশের পশ্চিম উপকূলে সাময়িক বিরতি নেয়। পরে তাদের চিকিৎসা দিয়ে ফেরত পাঠানো হয়। সোমবার নাগাদ নৌকাটি মালয়েশিয়া পৌঁছাতে পারে। ক্রাবি প্রদেশের গভর্নর কিতিবোদি প্রবিত্রাও নিশ্চিত করেছেন, নৌকার আরোহীরা রোহিঙ্গা। তবে তারা কোথা থেকে এসেছে তা জানাতে পারেননি তিনি।

ক্রাবি প্রদেশের লানতা দ্বীপের পুলিশের প্রধান টাইমকে জানান, মানবিকদিক বিবেচনা করে আমরা তাদের চিকিৎসা দিয়েছি এবং তারা মালয়েশিয়া যাওয়ার কথা বললে যাওয়ার অনুমতি দিয়েছি। এসময় স্থানীয় লোকেরা তাদেরকে খাবার এবং পানি দিয়ে সহযোগীতার হাত বাড়িয়ে দেয়।

রয়টার্স বলছে, মিয়ানমারের রাখাইন প্রদেশে সেনাবাহিনির অত্যাচারের মুখে দেশ ছাড়তে বাধ্য হয় রোহিঙ্গারা। বাংলাদেশে রোহিঙ্গা শিবিরে প্রচণ্ড ভিড় থাকায় প্রাণ বাঁচাতে রোহিঙ্গারা এখন সমুদ্র পথে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে মালয়েশিয়া পাড়ি জমাচ্ছে।

বাংলাদেশে বর্তমানে রোহিঙ্গা শরণার্থী সংখ্যা দশ লক্ষাধিক। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র রাখাইনের ঘটনাকে ‘জাতিগত নিধন’ বলে আখ্যায়িত করেছে। আর জাতিসংঘ এটিকে ‘গণহত্যা’ বলে অভিহিত করেছে।

সূত্র: রয়টার্স, টাইম

ফেসবুক মন্তব্য
xxx