নিউজটি পড়া হয়েছে 36

আগামী নির্বাচন হচ্ছে যুদ্ধাপরাধী, আগুন সন্ত্রাসী ও জঙ্গিবাজদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ যুদ্ধ : দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী

সিলনিউজটুয়েন্টিফোরডটকম ::: দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীর বিক্রম বলেছেন, আগামী নির্বাচন হচ্ছে যুদ্ধাপরাধী, আগুন সন্ত্রাসী ও জঙ্গিবাজদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ যুদ্ধ। মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তিদের ‘৭১ -এর অনুপ্রেরণায় এ যুদ্ধে সর্বশক্তি দিয়ে লড়াই করতে হবে। বাংলাদেশের মাটি থেকে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাজদের চিরতরে নির্মূল করতে  হবে।

মন্ত্রী আজ মতলব উত্তর উপজেলায় সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ড নিয়ে প্রচারণামূলক এক জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন।

মন্ত্রী বলেন, আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসতে পারলে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা শানিত হবে আর পরাজিত হলে প্রথমেই মুক্তিযোদ্ধারা প্রতিহিংসার শিকার হবেন।

মতলব উত্তর উপজেলায় আইটি পার্ক ও ইকোনোমিক জোনের প্রসঙ্গ উল্লেখ করে ত্রাণ মন্ত্রী বলেন, শেখ হাসিনার দূরদর্শিতায় উপজেলা পর্যায়ে প্রযুক্তি ও বিনিয়োগের প্রসার সম্ভব হয়েছে। প্রতি ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ বাংলাদেশের জন্য একটি দূরবর্তী স্বপ্নে মত ছিল উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রীর সাহসী ভূমিকার কারণে এ স্বপ্ন পূরণ হয়েছে।

তিনি বলেন, দেশী বিদেশী চাপ থাকা সত্ত্বেও সরকার যুদ্ধাপরাধীদের বিচার করে জাতিকে কলংকমুক্ত করেছে। ২০১৩ সালে সংগঠিত আগুন সন্ত্রাস ও পেট্রোল বোমা হামলার প্রসঙ্গ উল্লেখ করে মায়া চৌধুরী বলেন, বাংলাদেশের মানুষ শান্তিপ্রিয়। কিন্তু যুদ্ধাপরাধীদের সংগে নিয়ে একটি দল দেশে অরাজকতা সৃষ্টি করায় মানুষ তাদের প্রত্যাখ্যান করেছে। পরাজয় নিশ্চিত জেনে সে দলটি তখন বাহানা ধরে নির্বাচন প্রত্যাখ্যান করে নিজেদের অস্তিত্ব সংকটের মধ্যে ফেলে দিয়েছে। বাসস 

ফেসবুক মন্তব্য
Share Button
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •