নিউজটি পড়া হয়েছে 558

বন্ধুত্ব ও বিশ্বস্ততাঃ -তানিয়া সুলতানা তানি

জীবনটা অনেক সুন্দর! মানুষের সাথে মানুষের বন্ধূত্বপূর্ণ সম্পর্কের কারণে তা আরো সুন্দর হয়ে উঠে।দূর হয়ে যায় নিঃসঙ্গতা। পৃথিবীর সুন্দর আনন্দদায়ক ও আকর্ষণীয় শব্দগুলোর একটি হলো বন্ধু। বন্ধু কথাটি বললেই বা শুনলেই আমরা খুব আনন্দ বোধ করি। এই শব্দটি উচ্চারণে এমন কারো কথা মনে পড়ে যাকে আমি বিশ্বাস করি, যার ওপর আমার গভীর আস্থা, যার সাথে আমি সময় কাটাতে চাই, যার সান্নিধ্য উপভোগ করি, যার জন্য আমি যে কোন কিছু করার জন্য প্রস্তুত এবং আমি আশা করি যে সেও আমার জন্য সব কিছু করতে প্রস্তুত। শুধু তাই নয়, আমি তাকে ভালোবাসি এবং আমাকেও সে ভালোবাসবে। এক কথায় আমরা বলতে পারি একজন মানুষের সাথে আরেকজন মানুষের যে আন্তরিকতাপূর্ণ বা সুহৃদ সম্পর্ক তাকেই বলা হয় বন্ধুত্ব। এই সম্পর্কেই রয়েছে পরস্পর পরস্পরের জন্য দরদ আন্তরিকতা, মঙ্গল কামনা, গ্রহণযোগ্যতা, সাহায্য–সহযোগিতার মনোভাব এবং ত্যাগ স্বীকার ও প্রয়োজনে প্রাণ দেবার ইচ্ছা। মানুষে মানুষে এই গভীর আন্তরিক ও অন্তরঙ্গ সম্পর্কই হলো বন্ধুত্ব। বহু হলো আত্মার আত্মীয়। রক্তের সম্পর্ক না থাকলেও মনের টানে, হৃদয়ের টানে, মানুষের মধ্যে যে আত্মার সম্পর্ক তৈরি হয় তাই হলো বন্ধুত্ব। আমার মতে, অবশ্যইl কেউ যদি সৎ থাকে তাহলে মানুষ তাকে বিশ্বাস করতে পারবে, তার উপর ভরসা করতে পারবে এবং ক্ষমাও করতে পারবেl অনেক অন্যায় ও ভুল থেকে রক্ষা পাবেl সৎ থাকলে নিজেরই উপকার হয়l তাছাড়া যেকোনো দীর্ঘমেয়াদী সম্পর্কে সৎ থাকলে অনেক ঝামেলা থেকে বাঁচা যায়, জীবন সুন্দর ও সহজ হয়l তাই আমার মতে সততাই সর্বকৃষ্ট পন্থা l
লেখকঃ 
তানিয়া সুলতানা তানি
ফ্যাশন ডিজাইনার
ফেসবুক মন্তব্য