রোহিঙ্গা ইস্যুতে প্রস্তাব গ্রহণের আহবান জানিয়েছে সিপিএ।

সিলনিউজটুয়েন্টিফোরডটকম :::: রোহিঙ্গা ইস্যুতে মায়ানমারকে দায়ী করে রেজল্যুশন বা প্রস্তাব পাশ হতে পারে কমনওয়েলথ পার্লামেন্টারি অ্যাসোসিয়েশন সিপিএর সম্মেলনে। নির্বাহী কমিটি প্রস্তাব উত্থাপনের সিদ্ধান্ত নিলে ঢাকার সম্মেলনেই সেটি পাশ হতে পারে। মালয়েশিয়া, মালটা, কানাডা, পাকিস্তানসহ ১৮টি দেশ প্রস্তাব পাশের পক্ষে নিজেদের অবস্থান জানিয়েছে।

রোহিঙ্গাদের জাতিগত পরিচয় নিয়ে প্রোপাগান্ডা চালাচ্ছে মিয়ানমার। সিপিএ সম্মেলনে বিভিন্ন দেশের প্রতিনিধিদের একথা সাফ জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী। রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশে যে সামাজিক ও অর্থনৈতিক নেতিবাচক প্রভাব পড়ছে, তাও তুলে ধরেন মন্ত্রী।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী জানান, কক্সবাজারে বাস্তুচ্যুত মানুষের এত বড় সংখ্যায় অবস্থান, ব্যাপক সামাজিক, অর্থনৈতিক ও প্রাকৃতিক চাপ সৃষ্টি করছে। এছাড়া আঞ্চলিক নিরাপত্তা বিঘ্নিত হওয়ার ঝুঁকিও থেকে যাচ্ছে।

সংকট সমাধানে রাজনৈতিক উদ্যোগের আহ্বান প্রতিনিধিদের। সাধারণ সভায় রেজল্যুশন উত্থাপন করা যেতে পারে বলেও মনে করেন সিপিএ সদস্যরা।

যুক্তরাজ্য সাউথ ওয়েলস এমপি মোহাম্মদ আজগর জানান, এই জাতিটির উপর যেভাবে নিপীড়ন চালানো হচ্ছে তাতে অবশ্যই মিয়ানমারকে অভিযুক্ত করা উচিত।

কুকস আইল্যান্ড স্পীকার নিকি রেটন জানান, যেহেতু এখানে সব দেশের প্রতিনিধিরাই আছেন সুতরাং এখানেই সাধারণ অধিবেশনে রেজল্যুশন আনা যেতে পারে।

অনুষ্ঠান শেষে সম্মেলনের মুখপাত্র জানান, রোহিঙ্গা ইস্যুতে রেজল্যুশনের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবে সংস্থাটির নির্বাহী কমিটি।

Facebook Comments