নিউজটি পড়া হয়েছে 147

বাংলাদেশ ছাড়ার পরিকল্পনা বাতিলের সিদ্ধান্ত নিয়েছে শেভরন।

সিলনিউজটুয়েন্টিফোরডটকম ::: যুক্তরাষ্ট্রের দ্বিতীয় বৃহত্তম বহুজাতিক তেল-গ্যাস কোম্পানি শেভরন বাংলাদেশে তাদের তিনটি গ্যাস উৎপাদন ক্ষেত্র বিক্রির পরিকল্পনা বাতিল ও একই সঙ্গে বাংলাদেশ না ছাড়ারও পরিকল্পনার কথা জানিয়েছে। রোববার এক বিবৃতিতে এই তথ্য জানিয়েছে মার্কিন এ বহুজাতিক কোম্পানি।

শেভরনের এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের পররাষ্ট্রবিষয়ক উপদেষ্টা ক্যামেরন ভ্যান অ্যাসট রোববার বার্তাসংস্থা রয়টার্সের কাছে একটি বিবৃতি পাঠিয়েছেন। এতে তিনি বলেন, শেভরন তাদের মালিকানাধীন গ্যাস ক্ষেত্র বিক্রির চুক্তিতে আর এগোবে না।

শেভরন এই সম্পদ নিজেদের কব্জায় রাখার এবং নির্ভরযোগ্য ও সাশ্রয়ী মূল্যে জ্বালানি সরবরাহ করতে আমাদের সহযোগী পেট্রোবাংলা ও বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে কাজ চালিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

গত এপ্রিলে বাংলাদেশে তাদের তিনটি গ্যাস উৎপাদন ক্ষেত্র চীনা প্রতিষ্ঠান হিমালয় এনার্জির কাছে বিক্রি করে দেয়া হবে বলে জানায়। তবে কি কারণে শেভরন তাদের মালিকানা বিক্রির সিদ্ধান্ত বাতিলের সিদ্ধান্ত নিয়েছিল সে বিষয়ে তথ্য দেওয়া হয়নি। বাংলাদেশের উত্তোলন করা ৫৮ শতাংশ গ্যাসই শেভরনের। চলতি বছর শেভরনের নন-কোর সম্পদ থেকে বিলিয়ন ডলার নগদ সংরক্ষণের অংশ হিসেবে বাংলাদেশের ওই তিন ক্ষেত্র বিক্রির সিদ্ধান্ত নেয় শেভরন।

বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ গণমাধ্যমকে বলেন, বাংলাদেশ ছাড়ার পরিবর্তে দেশের বৃহত্তম গ্যাসক্ষেত্র বিবিয়ানায় ৪০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার বিনিয়োগের সিদ্ধান্ত নিয়েছে মার্কিন এই জায়ান্ট কোম্পানি। বিবিয়ানা থেকে দিনে এক হাজার ২৫০ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস উত্তোলন করা হয়।

ফেসবুক মন্তব্য
xxx