রোহিঙ্গা সমস্যা নিয়ে দ্বিপাক্ষিক আলোচনায় অংশ নিতে আগামী সপ্তাহে ঢাকায় আসছে মায়ানমার সরকারের একটি প্রতিনিধিদল।

সিলনিউজটুয়েন্টিফোরডটকম ::: মায়ানমারের রোহিঙ্গা সমস্যা নিয়ে দ্বিপাক্ষিক আলোচনায় অংশ নিতে আগামী সপ্তাহে ঢাকায় আসছে মায়ানমার সরকারের রাষ্ট্রীয় উপদেষ্টা অং সান সু চি’র একটি প্রতিনিধিদল। বাংলাদেশের পররাষ্ট্র সচিব শহীদুল হক সংবাদ মাধ্যমকে এ বিষয়ে নিশ্চিত করেছেন।

ধারণা করা যাচ্ছে, সু চি’র প্রতিনিধিদলে মিয়ানমারের মিনিস্টার অব দি অফিস ও স্টেট কাউন্সিলর উ টিন্ট সোয়ে ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী উ কিয়াও থিন থাকতে পারেন। রাষ্ট্রদূত শহীদুল হক বলেছেন, ‘প্রতিনিধি দলটি আগামী সপ্তাহের শুরুর দিকে ঢাকা সফরে আসবে৷ রোহিঙ্গা সংকট নিয়ে আলোচনা হবে।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন কর্মকর্তা জানান, ‘এই প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেবেন মায়ানমার স্টেট কাউন্সিলর অফিসের ইউনিয়ন মন্ত্রী উ টিন্ট সোয়ে। তিনি মায়ানমারের একজন প্রভাবশালী রাজনীতিক এবং রাখাইন বিষয়টি দেখভালের দায়িত্বে নিয়োজিত। তিনি একজন পেশাদার কূটনীতিক এবং ১০ বছর জাতিসংঘে মায়ানমারের স্থায়ী প্রতিনিধি হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছেন৷

তিনি আরো জানান, ‘গত জুলাই মাসে পররাষ্ট্রমন্ত্রী তাকে ঢাকা সফরের আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন৷ অক্টোবরের ১ বা ২ তারিখে প্রতিনিধি দলটি ঢাকায় আসছেন। এই সফর এক বা দুই দিনের হতে পারে।

সর্বশেষ গত বৃহস্পতিবার নিউইয়র্কে জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের অধিবেশন চলাকালে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এএইচ মাহমুদ আলীর সঙ্গে সাইড লাইনের বৈঠকে মায়ানমারের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা থাউং টুন রোহিঙ্গা সমস্যা নিয়ে দ্বিপাক্ষিক আলোচনার প্রস্তাব দেন৷। সব মিলিয়ে এটা এখন নিশ্চিত যে আগামী সপ্তাহে ঢাকায় রোহিঙ্গা সমস্যা নিয়ে ঢাকা-মায়ানমার বৈঠক হচ্ছে।

ফেসবুক মন্তব্য