নিউজটি পড়া হয়েছে 342

ঢাকার চলচ্চিত্রে শাকিব খান নিষিদ্ধ।

সিলনিউজ২৪.কমঃ ঢাকার চলচ্চিত্রে অনির্দিষ্টকালের জন্য নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়েছে সুপারস্টার শাকিব খানকে।শনিবার (২৯ এপ্রিল) বিএফডিসিতে পরিচালক সমিতির কার্যালয়ে বাংলাদেশ পরিচালক সমিতি আয়োজিত এক সভায় তাকে নিষিদ্ধ করা হয়।

সভা শেষে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে নির্মাতা বদিউল আলম খোকন সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, শাকিব খান দেশের সব চলচ্চিত্র পরিচালকদের অসম্মান ও হেয় প্রতিপন্ন করে জাতীয় দৈনিকসহ মিডিয়াতে বক্তব্য দিয়েছেন এবং বর্তমানে একই ধরনের বক্তব্য দিয়ে যাচ্ছেন। চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্ট সব কলাকুশলীরা মনে করেন তিনি তাদের অপমান ও তুচ্ছজ্ঞান করছেন। পরিচালকই হচ্ছেন ক্যপ্টেন অফ দ্য শিপ। তাদের অপমান মানে কলা কুশলীদের অপমান। তাই আজ (শনিবার) থেকে চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্ট সব সংগঠনের সদস্যরা অনির্দিষ্টকালের জন্য শাকিব খানের সঙ্গে কোনো চলচ্চিত্রের শুটিং ও ডাবিংয়ের কাজে অংশেগ্রহণ করবেন না।

সভায় বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচারক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মুশফিকুর রহিম গুলজারসহ চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচারক সমিতির মহাসচিব বদিউল আলম খোকন, সাধারণ সম্পাদক মুশফিকুর রহিম গুলজার, ফিল্ম এডিটর্স গিল্ড সভাপতি আবু মূসা দেবু, বাংলাদেশ চলচ্চিত্রগ্রাহক সংস্থার সভাপতি রেজা লতিফ, চলচ্চিত্র ফাইট ডাইরেক্টর্স অ্যাসোসিয়েশন সভাপতি আরমান ও চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন সংগঠনের নেতারা সই করেন।

এর আগে গত ২৫ এপ্রিল বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির পক্ষ থেকে এ বিষয়ে শাকিব খানকে উকিল নোটিশ পাঠানো হয়। একটি জাতীয় দৈনিকে পরিচালকদের হেয় করে বক্তব্য দেওয়ায় পরিচালক সমিতির পক্ষে নোটিশটি পাঠান ব্যারিস্টার তানভীর আহমেদ।

সম্প্রতি অভিনেত্রী অপু বিশ্বাস বেসরকারি একটি টেলিভিশনে এসে শাকিব খানের সঙ্গে তার বিয়ে এবং তাদের পুত্র সন্তান আছে বলে প্রকাশ করেন। আকস্মিকভাবে টেলিভিশনে এসে অপু বিশ্বাসের এমন কথা প্রকাশ করাকে কিছু মানুষের ষড়যন্ত্রের শিকার বলে মনে করেন শাকিব। যার পরিপ্রেক্ষিতে শাকিব খান পারিচালকদের নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্যও করেন।

ফেসবুক মন্তব্য