বৃহস্পতিবার, ০১ অক্টোবর ২০২০, ০৮:১০ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
নবীগঞ্জে জাঁকজমকভাবে জাতীয় কন্যা শিশু দিবস পালিত ধর্ষকদের শাস্তির দাবিতে সিলেট জেলা ও এম সি কলেজ ছাত্রলীগের মানববন্ধন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলমের মৃত্যুতে পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রীর শোক অ্যাটর্নি জেনারেল অ্যাডভোকেট মাহবুবে আলম আর নেই এমসি ছাত্রাবাসে গৃহবধুকে গণধর্ষনে জাতীয় মানবাধিকার’র নিন্দা জলবায়ু দূষণ বন্ধে ধর্মঘট এবং বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি পালন করেছে Fridays For Future (FFF) বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরীর পক্ষথেকে রুবেল মিয়ার সৌজন্যে দশঘরে বৃক্ষরোপন কর্মসূচী পালন করোনা শনাক্ত করতে অ্যান্টিজেন টেস্টের অনুমতি দিল স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় সৌদি আরবে আটকা পড়া বাংলাদেশিদের ফেরাতে বিশেষ ফ্লাইটের ব্যবস্থা করেছে বিমান ভিপি নুরুল হক নূরের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগে মামলা
ভাইট্টল্লিয়া’রা অখন কাঁন্দে বইয়্যা : বিনিইয়ামিন রাসেল

ভাইট্টল্লিয়া’রা অখন কাঁন্দে বইয়্যা : বিনিইয়ামিন রাসেল

ঘর থাইক্কা বারইলেই তউরা পানি, আঁটু পানি, উরাত পানি, গলা পানি, হাঁতারও।সামান্য বাতাসে শুরু অয় আফালও।উজানীয়্যা পানি নাইম্যা আর মেঘবৃষ্টি অইয়া আস্তা সুনামগইঞ্জ জিলা পানির তলে গেছে গিয়া। আমরা এর আগেও বইন্যা দেখছি কিন্তু অত কম বৃষ্টিপাতে এইভাবে ঘরবাড়ি তলই যাইতে দেখছিনা।অখন টাউনের বাসাত বইয়া বড়ি দিয়া হমানে মাছ ধরন যায়।রাস্তা দিয়া নাও চলে।গাও’য়ের মানুষ কই যাইবো,কিলাখান বাঁইচ্চা কাচ্চিয়া লইয়া থাকবো, কিতা খাইবো এইডা অখন একটা বড় সমস্যা অইয়া দাঁড়াইছে। চেয়ারম্যান,মেম্বাররা খুশি অইলেও গাও’র মানুষ বেজার।রিলিফের নামে হকলগায় হরিলুট চলতাছে।কেউ কেউ তিনবার চাইরবার পাইতাছে, কেউ একবারও পাইতাছেনা। ইতা চেয়ারম্যানরা মুখ দেইখা দিতাছে আর মেম্বাররা বাপ-ভাই-বউর নামে নিতাছে। যদিও গাও অখন ঘরে ঘরে মাতবর ইতায় আরেকবার চেয়ারম্যান, মেম্বারের সামনে আও করতে পারেনা, ডরায়। মূল কথা অইলো,অতো কম বৃষ্টিপাতে যে বড় বইন্যা হয় ইডার কারণ কিতা?টাউন থাইক্যা বইয়া বইয়া বিশেষজ্ঞ মত দিয়া এলাকার বাস্তব চিত্র না দেইখ্যা, না বুইঝা,না জাইন্যা বিভিন্ন বিষয় চাপাইয়া দিয়া ক্রমান্বয়ে এই সমস্যার সৃষ্টি করা অইছে।হাওরের বিল, গাও’র তলের গাং, জমিনের ফল্লা,বাড়ির আরাগাত সবতাই পলি পইড়া পইড়া ভরাট অইগেছে।কয়বছর থাইক্যা অপরিকল্পিত বেঁড়িবাঁধ অইয়া সাময়িক সুবিধা দেওয়ার নামে দীর্ঘস্থায়ী সমস্যায় পইড়া গেছে ভাইট্টল্লিয়ারা। অখন আর আগের মতো পানি ঝারেনা হাওর,বিল আর গাংগে।উপর থাইক্যা পড়া পানি যেমনে পরে তেমনেই থাকে।বড় গাংগের সাথে সংযোগ গুলাও বন্ধ কইরা দেওয়া অইছে।বড় গাং’ও অখন মরা গাংগে রূপ নিছে।এওতার সময় শুকাইয়্যা কাঠ অইয়া থাকে।যে গাংগে আগে এওতা-বাইড়্যা লঞ্চ চলতো অখন হেই গাং শুকাইয়্যা যায় কাতি মাসো। সরকারের যেখানে খনন কাজে মনোনিবেশ করার কথা হেইখানে খালি বেড়িবাঁধ দিয়্যা জলাবদ্ধতা যেমন বাড়াইছে তেমনি মাছ ও হাওরের অন্যান্য উদ্ভিদও ধ্বংস কইরা দিছে।সঠিক পরিকল্পনার অভাবে এইতা অইতাছে।যার ভবিষ্যৎ ফল অইবো ভয়াবহ। সময় থাকতে পদক্ষেপ নিলে হাওর, কৃষি ও মৎস সম্পদ বাঁচানো সম্ভব অইতো।সম্ভব অইতো বইন্যা নিয়ন্ত্রণ। কিন্তু সরকার উল্টা পথে হাঁটতাছে।পাঁচ দশটা হাওর মিলাইয়া যেখানে দুই চাইরটা সুইস গেইট দিলে অইতো হেই জায়গায় শতকোটি টাকা খরচ দেখাইয়া পরতি বছর বান্দ দেওয়া হয়।বান্দের টাকা বছর বছর জলে যায় আর হাওর ভরে।অবশ্য তাতে কিছু মাইনষের পকেটও ভরে।কিছু মাইনষের লাভের লাগি হাওরপাড়ের লাখ লাখ মানুষের জীবন আজ হুমকিত। মাছ অখন আর নাই বললেই চলে।আগের উজাই অখন আর ধরে না।টানাজাল, ফেলুন, অছুতও মাছ উঠে না।গুন্ডাইল কালা ইছার জায়গা অখন গুড়া ইছায় দখল নিছে।গুড়া ইছাও অখন যখন তখন পাওয়া যায়না।যেথা ইছা আমরা পালাইদিতাম অখন ইতাই মানুষ শখ কইরা কিন্না খায়।বড় মাছের বংশ তো ধ্বংসই কইরা দিছে কোনা জাল্লুয়ারায়।আওরের হকল জায়গায় কোনাজাল পালাইয়া এন্ডা-বাইচ্চা সবতা এরা ধইরা আনে। সরকারি কোন তদারকি হাওরের মাছ রক্ষায় নাই।তারপর কারেন্ট জাল্লুয়ারা তো আছেই। মিঠা পানির মাছের বিশাল ভান্ডার অখন শূন্যর পথে। নেতা,পাতি নেতা,সিকি নেতা,আধলা নেতা এরার মাথাত তো হাওর লইয়্যা কোন বেদনাঅই নাই।হেরা খালি টনের চিন্তা করে।স্বাধীনতার পঞ্চাশ বছরেও ভাইট্টল্লিয়ারা দেশের উন্নয়ন পরিকল্পনার অন্তর্ভুক্ত অইতে পারছেনা।এইডা আমরার ব্যর্থতা।আর এই ব্যর্থতা রাজনৈতিক ব্যর্থতা হিসাবেই বিবেচ্য অইবো। আমরা বড় নেতা পাইছি অইলেও বড় কাম পাইলামনা।আজকে আমরা পানির তলে।গরু, বাছুর, হাঁস, মোরগ,ধান লইয়া বেনালে।কাঁন্দা ছাড়া আমরার আর উপায় নাই।আমরারে দেখার কেউ নাই তাই আমরা পানি বন্দী অইয়া কাঁন্দিইয়া যাই।

 

লেখকঃ  বিনিইয়ামিন রাসেল 

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




themesba-zoom1715152249
© ২০১৭ - সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত - সিলনিউজ২৪.কম
ডিজাইন ও ডেভেলপে Host R Web